শিরোনাম :
নাটোরের সিংড়ায় ইউ,পি সদস্য আরিফের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাৎ’র অভিযোগ একদিনে দেশে আরও ২৮ মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ২৪১৯ ফুলছড়িতে প্রয়াত আওয়ামিলীগ নেতার কবর জিয়ারত করলেন মাহমুদ হাসান রিপন মিথ্যা মামলা থেকে অব্যাহতি চান সম্পাদক বোরহান হাওলাদার (জসিম) গাজীপুর মহানগরের কুনিয়া তারগাছ কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের পাল্টাপাল্টি কমিটি গঠন জি আর ইনিষ্টিটিউশনে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এর নামফলক ভাঙ্গায় নারায়ণগঞ্জ -৩ এমপি খোকাকে হুশিয়ারি গজারিয়ায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে ট্রাকের ধাক্কা, আহত-২ রাজাপুরে পিলার সাদৃশ্য বস্তুসহ প্রতারক চক্রের ৮ সদস্য আটক, মাইক্রোবাস জব্দ শরনখোলায় হরিণের মাংসসহ আটক এক জন দেবিদ্বারে দিনমজুরকে গরম রডের ছেঁকা ও মারধরের অভিযোগে চেয়ারম্যান প্রার্থী’র বিরুদ্ধে

ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকদের চাপ সৃষ্টি করে করোনা মহামারীতেও অনিয়মের খেলায় মেতে উঠেছে টঙ্গীর সাহাজউদ্দিন সরকার আদর্শ উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়

  • পোষ্ট করা হয়েছে : মঙ্গলবার, ১৬ জুন, ২০২০
  • ১১৮ জন দেখেছেন

জাহিদ হাসান জিহাদঃ টঙ্গীর একটি গণবসতিপূর্ণ এলাকা হওয়ার কারণে টঙ্গীর সাহাজ উদ্দিন সরকার স্কুল এন্ড কলেজে ছাত্র-ছাত্রীর সংখ্যা প্রায় ৪ হাজার। সারা বিশ্বে করোনা ভাইরাসে চলমান পরিস্থিতিতে মোকাবেলা করতে সাধারণ মানুষ আজ লকডাউনে ঘরবন্ধি অবস্থায় আছে। এরই মাঝে বাংলাদেশে বিভিন্ন এলাকা ভিত্তিক রেডজোন ঘোষণা ও জনসম্মুখ থেকে এড়িয়ে চলার জন্য সরকারি নিষেধাজ্ঞা।

 সরকারিভাবে আগামী ৮ই অক্টোবর সকল স্কুল কলেজ বন্ধ ঘোষণা থাকা সত্ত্বে নিয়ম নীতি তোয়াক্কা না করে নানা অনিয়মে মেতে উঠেছে টঙ্গীর সাহাজউদ্দিন সরকার স্কুল এন্ড কলেজ। ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকরা বলেন, তাদের ওপর চাপ সৃষ্টি করে প্রথম সাময়িক পরীক্ষার জন্য জুন মাস পর্যন্ত বেতন ও পরীক্ষার ফি পরিশোধ করে প্রবেশপত্র নিয়েছে। গত ১৩ জুন সাহাজ উদ্দিন স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ৩টি বিষয়ের জন্য প্রশ্নপত্র ও খাতা দেওয়া হয়েছে। তা বাসায় বসে পরীক্ষা দিয়ে গতকাল মঙ্গলবার জমা দিয়ে পুর্নরায় ৩টি বিষয়ের খাতা ও প্রশ্নপত্র নিয়ে যান। বেতন ও পরীক্ষার ফি পরিশোধ করে পরীক্ষা না দিলে তাদের বার্ষিক পরীক্ষায় এলাও করা হবে না। নাম প্রকাশ না করার শর্তে ছাত্রছাত্রীরা বলেন, দীর্ঘ প্রায় ৪ মাস করোনা ভাইরাসের কারণে আমার বাবা লকডাউনে ঘরবন্ধি ছিল। আমাদের সংসার চলতে হিমসীম খেতে হচ্ছে। এরই মাঝে বিদ্যালয় থেকে চাপ সৃষ্টির কারণে আমার মায়ের কানের জিনিস বিক্রি করে বিদ্যালয়ের ৪ মাসের বেতন ও পরীক্ষার ফি বাবদ ২৫শ’ টাকা পরিশোধ করতে হয়েছে।

এ ঘটনায় স্কুলের প্রধান শিক্ষক মো: দেলোয়ার হোসেনের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি কোন সদউত্তর দিতে পারেননি।

এ বিষয়ে গাজীপুর জেলা শিক্ষা অফিসার রেবেকা সুলতানার সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, অনলাইনে মাধ্যমে পাঠদান কার্যক্রম পরিচালনা করা যাবে। কিন্তু কোন বেতন ও পরীক্ষার ফি নিয়ে লিখিত কোন পরীক্ষা নিতে পারবে না এবং ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকদের বিদ্যালয়ের বেতনের জন্য চাপ সৃষ্টি করতে পারবে না। এ রকম কোন অভিযোগ পাওয়া গেলে ওই প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 এ বিষয়ে গাজীপুর জেলা প্রশাসক এস.এম তরিকুল ইসলামের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত হলে প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এছাড়াও গাজীপুর জেলা অতিরিক্ত শিক্ষা অফিসার আবুল কালাম আজাদ ও গাজীপুর সদর থানা উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ জাকি বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করবে বলে এ প্রতিনিধিকে জানান।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category

বাংলাদেশ নামাজের সময়সূচি

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ভোর ৫:০৫ পূর্বাহ্ণ
  • দুপুর ১১:৪৯ পূর্বাহ্ণ
  • বিকেল ১৫:৩৫ অপরাহ্ণ
  • রাত ১৭:১৪ অপরাহ্ণ
  • সন্ধ্যা ১৮:৩১ অপরাহ্ণ
  • ভোর ৬:২০ পূর্বাহ্ণ

বাংলাদেশে কোরোনা

সর্বশেষ (গত ২৪ ঘন্টার রিপোর্ট)
আক্রান্ত
মৃত্যু
সুস্থ
পরীক্ষা
২,৯৪৯
৩৭
২,৮৬২
১৩,৪৮৮
সর্বমোট
১৭৮,৪৪৩
২,২৭৫
৮৬,৪০৬
৯০৪,৫৮৪
© All rights reserved © 2019 doinikkhobor24.com
Design & Developed By http://ncbitinstitute.com/